ভাতার টাকা প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে দিলেন এক গেরিলা মুক্তিযোদ্ধা

করোনা পরিস্থিতিতে অসহায় মানুষের জন্য মুক্তিযোদ্ধা ভাতার টাকা প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ ও কল্যাণ তহবিলে দিলেন জয়পুরহাটের এক গেরিলা মুক্তিযোদ্ধা।

রবিবার (১৭ই মে) দুপুরে জয়পুরহাট সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মিল্টন চন্দ্র রায়ের কার্যালয়ে গিয়ে তার হাতে তিন মাসের মুক্তিযোদ্ধা ভাতার ৩৬ হাজার টাকা দেন মুক্তিযোদ্ধা আজিজুল ইসলাম রাজু।

জয়পুরহাট শহরের সাহেব পাড়া এলাকার বাসিন্দা এই মুক্তিযোদ্ধা। বয়স ৬৪ ছুঁয়েছে এ বছর। মুক্তিযুদ্ধের সময় ৭ নম্বর সেক্টরের অধীন সম্মুখ গেরিলাযুদ্ধে অংশ নিয়েছিলেন তিনি।

চলমান করোনাভাইরাস সংকটকেও যুদ্ধের থেকে কম কিছু মনে করছেন না প্রত্যক্ষ রণাঙ্গনে লড়া এই মুক্তিযোদ্ধা। কর্মজীবনে জয়পুরহাট চিনিকলে হিসাব সহকারি পদে চাকরি করতেন এই মুক্তিযোদ্ধা। ২০১৪ সালে চাকরি থেকে অবসর গ্রহণ করেন তিনি।

আজিজুল ইসলাম রাজু বলেন, ‘করোনাভাইরাস এমন এক শত্রু, যাকে দেখার উপায় নেই। তার বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থাও গ্রহণ করতে পারছি না। তাই নিজের সামর্থ্য অনুযায়ী করোনাযুদ্ধে, তথা এই সংকটময় মুহূর্তে সৈনিক হয়ে পাশে দাঁড়ানোর চেষ্টা করেছি। সচেতনতা এবং চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী চলা এই যুদ্ধ মোকাবিলার প্রধান অস্ত্র।’

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মিল্টন চন্দ্র রায় বলেন, ‘করোনাকালীন অসহায় ও গরিবদের সাহায্যে প্রধানমন্ত্রীর ডাকে প্রবীণ এই মুক্তিযোদ্ধা সাড়া দিয়ে তাঁর তিন মাসের ভাতার টাকা প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ ও কল্যাণ তহবিলে দিয়েছেন। তাঁর মতো সমাজের বিত্তবানদের এই সংকটকালীন এগিয়ে আসার আহবান জানান তিনি।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here